শ্রীলঙ্কায় উত্তেজনা:

১৪ মে, ২০১৯ ১১:১৫ শ্রীলঙ্কায় উত্তেজনা: সংঘর্ষ, অগ্নিকান্ড, নিহত ১

আন্তর্জাতিক

Sharing is caring!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক-

শ্রীলঙ্কার উত্তর পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশে দ্বিতীয় দিনের মতো মসজিদ ও মুসলিমদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা হয়েছে, দাঙ্গায় নিহত হয়েছেন একজন। সোমবার (১৩ মে) এসব ঘটনার সময় পুলিশ উচ্ছৃঙ্খল জনতাকে লক্ষ্য করে কাঁদুনে গ্যাস নিক্ষেপ করে। পরে কর্তৃপক্ষ দেশজুড়ে রাতব্যাপী কারফিউ জারি করে। বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

খ্রিস্টানদের ইস্টার পরবের দিন জঙ্গিদের আত্মঘাতী বোমা হামলার পর থেকে দ্বীপদেশটিতে এটাই সবচেয়ে বড় সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা। কয়েকটি হোটেল ও গির্জা লক্ষ্য করে চালানো ২১ এপ্রিলের ওই হামলায় ২৫৩ জন নিহত হয়। এরপর থেকেই দেশটির সংখ্যালঘু মুসলিমদের বিরুদ্ধে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছিল।

উত্তর পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশের মারাউয়িলি হাসপাতাল থেকে এক পুলিশ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ছুরিকাহত ৪২ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে হাসপাতালে ভর্তি করার পর তার মৃত্যু হয়।

স্থানীয় এক বাসিন্দা যিনি ছুরিকাহত ওই ব্যক্তিকে হাসপাতালে নিতে সাহায্য করেছেন, নিহতের নাম মোহাম্মদ আমীর মোহাম্মদ সালি বলে জানিয়েছেন।

উত্তর পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশের মুসলিম অধ্যুষিত অংশগুলোর বাসিন্দারা জানিয়েছেন, উচ্ছৃঙ্খল জনতা দ্বিতীয় দিনের মতো মসজিদগুলোতে হামলা চালিয়েছে, তাদের দোকান ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো তছনছ করেছে।

প্রতিহিংসার আশঙ্কায় পরিচয় প্রকাশ না করার শর্তে কোট্টামপিটিয়া এলাকার এক বাসিন্দা টেলিফোনে রয়টার্সকে বলেছেন, ‘কয়েকশ দাঙ্গাকারী ছিল, পুলিশ ও সেনাবাহিনী শুধু দেখছিল। তারা আমাদের মসজিদগুলো পুড়িয়ে দিয়েছে এবং ‍মুসলিমদের মালিকানাধীন বহু দোকান গুড়িয়ে দিয়েছে।

‘আমরা বাড়ি থেকে বের হওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ আমাদের ভিতরে অবস্থান করতে বলে।’

পুলিশ দেশজুড়ে রাত ৯টা থেকে ভোর ৪টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করেছে বলে মুখপাত্র রুয়ান গুনাসেকেরা জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *