ব্যাটসম্যানদের আত্মহুতির মিছিলে টাইগারদের আরেকটি আফসোস জাগানিয়া পরাজয়

খেলাধুলা

Sharing is caring!

বিশ্বকাপে নিজেদের ৮ম ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। ভারতের দেয়া ৩১৫ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ১২ বল বাকি থাকতে ২৮ রানে পরাজিত হয় টাইগাররা । এ পরাজয়ে সেমি স্বপ্নেরও ইতি ঘটলো টাইগারদের ।

এজবাস্টনে টস ভাগ্য সহায় হয় ভারতের। এতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন বিরাট কোহলি। সিদ্ধান্ত যে সঠিক তার প্রমাণ দুই ওপেনার লোকেশ রাহুল এবং রোহিত শর্মার ১৮০ রানের জুটি। আবশ্য তাতে তামিমের খানিকটা দায়ও আছে। ম্যাচের পঞ্চম ওভারে দারুণ ফর্মে থাকা রোহিত শর্মা তখন ৯ রানে ব্যাট করছেন। মোস্তাফিজুর রহমানের শর্ট বলে বড় শট খেলতে গিয়ে মিড উইকেটে তুলে দেন রোহিত, বেশ কিছু দৌড়ে এসে বল হাতে নিয়েও রাখতে পারেননি তামিম ইকবাল। তামিমের দেয়া লাইফ নিয়ে বাংলাদেশি বোলারদের ওপর তাণ্ডব চালিয়ে বিশ্বকাপের চলতি আসরের চতুর্থ শতক তুলে নেন রোহিত।

দুই ওপেনারের বিদায়ের পর ভারতকে বড় জুটি গড়তে দেয়নি টাইগার বোলররা। ২৬ রানে বিরাট কোহলি মোস্তাফিজের শিকার হওয়ার পর হার্দিক পান্ডিয়াকে ফেরান কোন রান করার আগেই। অর্ধশতক থেকে ২ রান দূরে থাকতে রিশভ পান্থকে ফেরান সাকিব। এর পর মুস্তাফিজের শিকারে পরিণত হন ৩৬ করা ধোনি, কার্তিক এবং সামি।

শেষ ওভারে দুই উইকেট নেয়া মোস্তাফিজ ম্যাচে মোট ৫টি উইকেট তুলে নেন। এছাড়া একটি করে উইকেট তুলে নেন সাকিব, রুবেল এবং সৌম্য সরকার।

৩১৫ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ৩৯ রানের মাথায় মোহাম্মদ সামির বলে ইনসাইড এ্যাজ আউট হয়ে ২২ রানে ফেরেন তামিম ইকবাল। দ্বিতীয়তে ব্যাট করতে নামা সাকিব ও সৌম্য জুটিতে আসে ৩৫ রান। এর পর হার্দিক পান্ডিয়ার শর্ট বল খেলতে গিয়ে নিজের ৩৩ রানের মাথায় বিরাটের হাতে ধরা পরেন সৌম্য। মুশফিকও বড় ইনিংসের আভাস দিয়ে ফিরে যান ২৪ রান করে চাহালের বলে। এরপর একে একে দ্রুত বিদায় নেন লিটন, সৈকত এবং ৬৬ রান করা সাকিব। সাব্বির এবং সাইফের ৫৬ রানের জুটি কিছুটা ভিত্তি গড়লেও ৩৬ রানে বুমরার শিকারে পরিণত হোন সাব্বির আর এতেই জয়ের আশা শেষ বাংলাদেশের। দলপতি মাশরাফি ক্রিজে এসে কিছুটা রান কমানোর চেষ্টা করলেও তিনি ফিরে যান খুব দ্রুত। অপর প্রান্তে সাইফ উদ্দীন অপরাজিত থাকেন ৫১ রানে।

বুমরাহ নেন ৪ উইকেট এবং পান্ডিয়া নেন ৩ উইকেট। সামি,চাহাল ও কুমার নেন ১ টি করে উইকেট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *