চিকিৎসা শুরু হওয়ার চার মাসে ২৬ কেজি ওজন কমেছে ঋষি কাপুরের

বিনোদন

Sharing is caring!

গত মঙ্গলবার একটা কমেডি শোয়ে এসে অভিনেতা শক্তি কাপুর বলেন, জন্মদিনের আগেই দেশে ফিরছেন ঋষি কাপুর। খুব সম্ভবত অগস্টের শেষের দিকে দেশে ফিরছেন। তবে তার দেশে ফেরা নিয়ে এবার শক্তি কাপুরের দাবি অস্বীকার করলেন ঋষি নিজেই।

মুম্বাই মিররকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে ঋষি কাপুর বলেন, ‘৪ সেপ্টেম্বর আমার জন্মদিনের আগে আমার পক্ষে দেশে ফেরা সম্ভব হচ্ছে না। আরও ১১ মাস আমাকে বিদেশেই (আমেরিকা) থাকতে হবে। এটা আমার জন্য ভীষণই কঠিন সময়। তবে আমার স্ত্রী নীতু আমার দুই সন্তান রণবীর ও ঋদ্ধিমা আমার পাশে সব সময় রয়েছে। আমি ওদের কাছে কৃতজ্ঞ। আমি দেশে ফেরার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি।’

তিনি বলেন, ‘আমার শেষ চিকিৎসার পর আর ৫ থেকে ৬ সপ্তাহ আমাকে এখানেই (আমেরিকা) থাকতে হবে। আমার এই চিকিৎসাকে বলে কনসলিডেশন বা পুশব্যাক। যেখানে আমাকে কেমোথেরাপির মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে, যাতে এই ব্য়াধি আর আমার শরীরে ফিরে না আসে। এই নিয়ে দ্বিতীয়বার আমার এই চিকিৎসা হচ্ছে। আমি ভেবেছিলাম জন্মদিনের আগে আগস্টের শেষের দিকেই আমি দেশে ফিরতে পারব, তবে সেটা সম্ভব হচ্ছে না।’

ঋষি কাপুর তার অসুস্থতা প্রসঙ্গে আরও বলেন, ‘চিকিৎসা শুরু হওয়ার চার মাসের মধ্যে তার ওজন প্রায় ২৬ কেজি কমেছে। এখন তার আর কোনো ভুঁড়ি না। দিল্লিতে ছবির শুটিং চলাকালীন আমার এই ব্যাধি (ক্যানসার) ধরা পড়ে। তবে আমার চিকিৎসা শুরু হওয়ার পর আমার শারীরিক অবস্থার ধীরে ধীরে উন্নতি হয়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *