নড়াইলে নিজের পোষা সাপের কামড়ে সাপুড়ের মৃত্যু

সারাদেশ

Sharing is caring!

নড়াইলে নিজের পোষা বিষধর সাপকে খাবার খাওয়াতে গিয়ে দংশনে আনোয়ার হোসেন (৪০) নামে এক সাপুড়ের মৃত্যু হয়েছে।

গত শনিবার (২০ জুলাই) দুপুরে তার মৃত্যু হয়। আনোয়ার হোসেন নড়াইল জেলার উত্তর সীমান্তবর্তী মাগুরা জেলার গঙ্গারামপুর গ্রামের কাশেম আলীর ছেলে।

গঙ্গারামপুর গ্রামের প্রতিবেশি পল্লব জানান, আনোয়ার হোসেন পেশায় একজন সাপুড়ে। বিভিন্ন এলাকার মানুষকে সাপে কাটলে তিনি ঝাড়ফুঁক ও গাছ খাইয়ে সুস্থ করে তুলেছেন। তিনি কয়েকটি বিষধর সাপ পুষতেন।

শনিবার বেলা ১০টার দিকে আনোয়ার তার নিজের পোষা সাপকে মাছ খাওয়াতে যান। এ সময় একটি বিষধর সাপে দংশন করলে কিছু গাছ-গাছড়া খেয়ে ঘুমিয়ে পড়েন। বেলা একটার দিকে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লে পরিবারের লোকজন তাকে নড়াইল সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু নড়াইল সদর হাসপাতালে সাপের কামড়ের প্রতিষেধক অ্যান্টিভেনাম না থাকায় বিকেল সোয়া চারটার দিকে বিনা চিকিৎসায় তিনি মারা যান।

নড়াইল সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কর্মরত চিকিৎসক মো. মিজানুর রহমান জানান, হাসপাতালে সাপে কাটা রোগির প্রতিষেধক অ্যান্টিভেনাম না থাকায় বাইরে থেকে কিনতে বলা হয়। কিন্তু রোগীর স্বজনরা বিভিন্ন দোকানে ঘুরে ওষুধ পেলেও বাকি না দেওয়ায় রোগিকে ওষুধ প্রয়োগ করা সম্ভব হয়নি। পরে রোগির মৃত্যু হয়।

নড়াইল সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) আফম মশিউর রহমান বাবু জানান, এই মুহূর্তে হাসপাতালে সাপে কাটা রোগির জন্য ব্যবহৃত অ্যান্টিভেনাম সরবরাহ নেই। তবে দ্রুত যাতে অ্যান্টিভেনাম বরাদ্দ পাওয়া যায় সেজন্য চেষ্টা চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *