আনোয়ারায় আবারও আট ঘরে বন্য হাতির তাণ্ডব

দক্ষিণ চট্টগ্রাম বৃহত্তর চট্টগ্রাম

Sharing is caring!

চট্টগ্রামের আনোয়ারায় আবারও আটটি ঘরে আক্রমণ করেছে বন্য হাতি।

গতকাল রোববার ( ২১ জুলাই ) রাতে আনোয়ারা উপজেলার বৈরাগ ইউনিয়নের গুয়াপঞ্চক গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,গতকাল রাত নয়টার দিকে একটি বন্য হাতি একই এলাকার জাগির আহমেদ,মোহাম্মদ ইদ্রিস,জালাল আহমেদ,আব্দুল কাদের,আব্দুল হক,মোহাম্মদ আলমগীর,হাসন আলী ও আব্দুল খালেকসহ মোট আটটি ঘরের দেয়াল ভেঙ্গে দেয়।বন্য হাতিটি সারা রাত বাড়িগুলোর গাছ পালাসহ বসতভিটার বিভিন্ন আসবাবপত্র ভেঙ্গে দেন।জালাল আহমদের ঘরের তিন বস্তা ধান ও নষ্ট করে দেয়।

ওই সময় আক্রমণের শিকার লোকজন দু’টি পাকা ঘরের ছাঁদে আশ্রয় নেন।বন্য হাতিটি ফজরের পরে পাহাড়ে চলে গেলে লোকজন ঘরে ফিরেন।

স্থানীয় লোকজন জানান, গত এক বছরে আনোয়ারায় হাতির আক্রমণে তিনজন নিহত হয়েছেন। বিভিন্ন সময়ের হামলায় আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। হাতির আক্রমণে শতাধিক ঘর ধ্বংস হয়েছে। স্থানীয় লোকজনের অভিযোগ, বন বিভাগ আর প্রশাসন হাতি তাড়াতে ব্যর্থ হওয়ায় বারবার একই ঘটনা ঘটছে।

এ ব্যাপারে বন্য প্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা আ ন ম ইয়াসিন নেওয়াজ জানান, ‘আনোয়ারায় হাতির আক্রমণের ব্যাপারে আমরা উদাসীন নই। আমরা উদ্যোগী হচ্ছি কীভাবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কমিয়ে আনা যায়। ইতিমধ্যে সেখানে পাহারা দল গঠন করা হয়েছে।’

আ ন ম ইয়াসিন নেওয়াজ আরও বলেন, বন্য হাতি জোর করে সরিয়ে নেওয়া যায় না। তাই ওগুলো পাহারায় রাখতে হয়। ওগুলো স্বাভাবিকভাবে ফিরে যাবে। তাই যখন ফিরে যাবে, তখন যাতে আর না আসে, সে চেষ্টা করা হবে।

বৈরাগ ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সোলায়মান বলেন,এক মাস ধরে এলাকার লোকজনের ঘুম নেই। আজ এই বাড়ি তো কাল ওই বাড়িতে হানা দিচ্ছে হাতি। লোকজনের কষ্টের শেষ নেই।

আনোয়ারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শেখ জোবায়ের আহমেদ বলেন, ‘হাতির হানায় আটটি বসতবাড়ি ক্ষতি হওয়ার খবর শুনেছি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *