সাত কলেজের অন্তর্ভুক্তি বাতিল হলে ঢাকা অচলের হুমকি

জাতীয়

Sharing is caring!

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্ভুক্তি রাজধানীর সরকারি সাত কলেজের অন্তর্ভুক্তি বাতিল হলে ঢাকা অচলসহ কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়েছে কলেজগুলোর শিক্ষার্থীরা।

সোমবার (৫ আগস্ট) বেলা ১১টায় ঢাকা কলেজ ক্যাফেটেরিয়ায় এক সংবাদ সম্মেলনে সাত কলেজের পক্ষ থেকে ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থী আবু বকর এই হুঁশিয়ারি দেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন শিক্ষার্থী শহিদুল ইসলাম, ফৌজিয়া মিথিলা,নূরজাহান শিখা প্রমুখ।

আবু বকর বলেন,“সাত কলেজের অন্তর্ভুক্ত পূর্ব পরিকল্পিত না হওয়ায় আমরা সেশনজটে পরে জীবন থেকে দু’টি বছর হারিয়েছি। আমরা আন্দোলন করছি আমাদের একাডেমিক সমস্যা সমাধানের জন্য এবং সমস্যাগুলো এখন সমাধানের দিকে অগ্রসর হচ্ছে। আমরা অন্তর্ভুক্ত বাতিল চাই না। আবার অন্তর্ভুক্তি যদি বাতিল করা হয় তাহলে আমরা আরও মারাত্মক সমস্যায় পড়বো।’

এ বিষয়ে কোনো ধরনের হঠকারী সিদ্ধান্ত হলে গণ আন্দোলনের ঘোষণা দিয়ে তিনি বলেন, ‘আমাদের কিছু একাডেমিক সমস্যা আছে, প্রশাসনের উচিত সেগুলো সমাধান করা। কিন্তু তা না করে যদি অন্তর্ভুক্ত বাতিলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় তাহলে আমরা গণ আন্দোলন নামবো। অন্তর্ভুক্ত সাত কলেজের শিক্ষার্থীদের নিয়ে পুরো ঢাকা শহরকে অচল করে দেওয়া হবে।’

প্রসঙ্গত, গত ২১ থেকে ২৪ জুলাই পর্যন্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা সাত কলেজের অন্তর্ভুক্তি বাতিলের দাবিতে প্রশাসনিক, অ্যাকাডেমিক ভবনে তালা লাগানোসহ ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করে আন্দোলন করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন গত ২৪ জুলাই সমস্যা সমাধানে ঢাবি প্রো-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদকে আহ্বায়ক করে ১১ সদস্যের একটি কমিটি করে। কমিটিকে ১৫ কার্য দিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়।

তবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্ভুক্ত সাত কলেজ ইস্যুতে সৃষ্ট সংকট সমাধানে গঠিত কমিটির সময় ৩০ কার্যদিবস পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে। সোমবার (৫ আগস্ট) কমিটির প্রধান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক মুহাম্মদ সামাদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনকারীরাও প্রশাসন যৌক্তিক সিদ্ধান্তে না নিলে ঈদের পরে ফের কর্মসূচি পালনের কথা জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *