নগরে চলন্ত বাসে নারী যাত্রীকে শ্লীলতাহানি: হেলপার আটক, বাস জব্দ

অপরাধ চট্টগ্রাম মহানগর

Sharing is caring!

নগরীতে চলন্ত বাসে নারী যাত্রীর শ্লীলতাহানীর অভিযোগে বাসের এক সহকারীকে ৪ মাসের কারাদন্ড দিয়েছে বিআরটিএর ভ্রাম্যমান আদালত।

বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট) দুপুরে নগরীর দামপাড়ায় ম্যাজিস্ট্রেট এস এম মঞ্জুরুল হক আমীর হোসেন নামে বাসের ওই সহকারীকে এ দন্ড দেন। এর আগে নগরীর ১০ নম্বর রুট থেকে বাসটিকে জব্দ করে বিআরটিএ।

ম্যাজিস্ট্রেট বলেন, বুধবার জিইসি এলাকায় একটি বাসের সহকারি একজন নারী যাত্রীর শ্লীলতাহানী করে। এছাড়াও আরো কয়েকজনের শ্লীলতাহানীর চেষ্টা চালায়। এ ব্যাপারে বিআরটিএর ফেসবুক পেজে ভুক্তভোগীরা এমন অভিযোগ করলে অভিযুক্ত সহকারীকে ধরতে অভিযান পরিচালনা করে বিআরটিএ। এসময় প্রথমে বাসটি আটক হলেও তাতে আমীর হোসেন না থাকায় পরে অন্যদের সহযোগিতায় তাকেও আটক করে দন্ড দেয় ভ্রাম্যমান আদালত।

এক ভুক্তভোগী তার ফেসবুক পেজে লিখেন, চট্টগ্রাম নগরীর ২ নম্বর গেইট থেকে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে দেওয়ানহাট যাবার উদ্দেশে ১০ নম্বর রুটের একটি বাসে উঠেন তিনি। বাসের নাম্বার চট্ট-মেট্রো জ ১১-১৬০৫। বাসটিতে যাত্রী তেমন বেশি ছিল না। হঠাৎ তিনি দেখেন সিইপিজেডে এক নারী যাত্রীকে বাসের হেলপার বার বার গায়ে হাত দিচ্ছে। বেশ কয়েকবার নিষেধ করার পরেও শুনছে না। পরে আরও কয়েকটি মেয়ে ওই বাসে ওঠেন। তাদেরও শ্লীলতাহানি করার চেষ্টা করছে। পরে দু’জন পুরুষ যাত্রী মিলে ওই ঘটনা প্রতিরোধ করে। এ সময় তারা কিছু প্রমাণ হাতে রেখে প্রশাসনকে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *