সোনার বাংলা গড়তে এরশাদের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা হবে: জি এম কাদের

রাজনীতি

Sharing is caring!

গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে এবং সোনার বাংলা গড়ার জন্য হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ যে কাজের পরিকল্পনা করেছিলেন, তারই অসমাপ্ত কাজ দেশ ও জাতির স্বার্থে জাতীয় পার্টি করবে বলে জানিয়েছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জি এম কাদের।

শনিবার (২৮ সেপ্টেম্বর) ‘জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম পার্টি’র পক্ষ থেকে দেওয়া এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয়ে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। জি এম কাদের বলেন, ‘জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছিলেন, মুক্তিযোদ্ধারা সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ সন্তান। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের এই সম্মানে ভূষিত করেন এবং এক টাকার বিনিময়ে বিভিন্ন জেলায় মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য অফিস তৈরির স্থান দিয়েছিলেন। মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য কল্যাণ ট্রাস্ট ও বিভিন্ন অর্থনৈতিক সুযোগ-সুবিধাও দিয়েছিলেন সাবেক এই রাষ্ট্রপতি।’

প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে জি এম কাদের বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী দলমত নির্বিশেষে জিরো টলারেন্সে দুর্নীতি কঠোর হাতে দমন করছেন। জাতীয় পার্টি বিষয়টি স্বাগত জানায়। দুর্নীতির কারণে দেশে বেকার সমস্যা ভয়াবহ আকার ধারণ করছে। বেকার সমস্যা সমাধান করতে হলে দেশে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে।’

মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম পার্টির আহ্বায়ক ডা. আজিজুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আল আমিন মুন্নার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- জাতীয় পার্টির মহাসচিব ও বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ মো. মসিউর রহমান রাঙ্গা, প্রেসিডিয়াম সদস্য সালমা ইসলাম, রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম পার্টির যুগ্ম আহ্বায়ক জহুরুল ইসলাম মিন্টু, আলতাফ হোসেন, ইউসুফ চৌধুরী এবং শরিফুল ইসলাম শরিফ।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- প্রেসিডিয়াম সদস্য নাজমা আখতার, উপদেষ্টা নুরুল আজহার, ভাইস চেয়ারম্যান নিগার রানী সুলতানা, আহসান আদেলুর রহমান, যুগ্ম মহাসচিব শেখ আলমগীর হোসেন, সুলতান আহমেদ সেলিম, সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য ইসহাক ভূঁইয়াসহ অন্যরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *